নতুন লকডাউন || বিপাকে বাফুফে

আগামী ৩০ এপ্রিল প্রিমিয়ার ফুটবল লিগের ফিরতি পর্বের খেলা শুরু হওয়ার ঘোষণা দেয়া ছিল। কোনো ভাবেই লিগ পেছানো যাবে না এমন অবস্থানে ছিল বাফুফে এবং যে ক্লাবগুলো লিগ এক সপ্তাহ পেছাতে বলেছিল সেটিও সম্ভব ছিল না।

সোমবার সরকার নতুন করে আরো এক সপ্তাহ লকডাউন ঘোষণা করায় বাফুফে লিগ শুরু নিয়ে বিপাকে পড়েছে। বাফুফের সাধারণ সম্পাদক আবু নাঈম সোহাগ জানিয়েছেন, লকডাউনের সরকারি প্রজ্ঞাপন দেখে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করতে চায় বাফুফে। সরকারী প্রজ্ঞাপনে বিধিনিষেধ কি কি উল্লেখ আছে সেটা দেখে সরকারের সঙ্গে কথা বলবে বাফুফে। সোহাগ বললেন, ‘আমরা প্রজ্ঞাপনটা দেখলে বুঝব খেলা চালানোর মতো পরিস্থিতি কতোটা আছে বা নেই। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে কথা বলব। তারা যদি কোনো পরামর্শ দেয় সেটা মেনে নিয়ে খেলা চালাব।’

লিগ কমিটির চেয়ারম্যান আব্দুস সালাম মুর্শেদী জানিয়েছেন, তারা খেলা চালানোর ব্যাপারে কাজ এগিয়ে রাখছেন। সরকারীভাবে যেসব বিধিনিষেধ দেয়া হবে তা মেনে নিয়ে দর্শকবিহীন মাঠে খেলা চালাতে চান। সালাম বললেন, ‘এক বছর খেলা হয়নি। খেলোয়াড়রা অনেক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন। শরীরটা নির্ভর করে নিয়মিত অনুশীলনের ওপর। খেলা না হলে অনুশীলন হবে না। খেলোয়াড়রা নিঃশেষ হয়ে যাবে। ইউরোপে দর্শক ছাড়া খেলা হচ্ছে। আর্থিক ক্ষতি হলেও খেলোয়াড়দের বাঁচিয়ে রাখতে খেলা হওয়াটাও জরুরী। আমরা শঙ্কিত করোনার কারণে।

ভারতে যেভাবে করোনা বাড়ছে তাতে আমাদের শঙ্কাটা বাড়িয়ে দিয়েছে।’ খেলা যদি পিছিয়ে যায় তাহলে ব্রাদার্স ও আরামবাগের জন্য ভালো। তারা চেয়েছিল এক সপ্তাহ পেছাক। সেটি এখন এমনিতেই হয়ে যেতে পারে। আর না হলেও এই দুই ক্লাব মাঠে নামার প্রস্তুতি শুরু করেছে। আরামবাগ অনুশীলনে নেমেছে।l

লিগের খেলা শুরু করার ব্যাপারে রেফারীজ কমিটির সঙ্গে ভার্চুয়াল বৈঠক হয়েছে। বাধ্যতামূলক করা হয়েছে খেলা পরিচালনাকারী রেফারীদের করোনা পরীক্ষা। খেলা চলাকালীন খেলোয়াড়দের করোনা পরীক্ষা বাধ্যতামূলক রয়েছে। যোগ হলও রেফারীদেরও।

বে অব বেঙ্গল নিউজ / BAY OF BENGAL NEWS