বন্দরে অয়েল ট্যাংকারে আগুন, নিহত ২



কর্ণফুলী নদীতে একটি অয়েল ট্যাংকারে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। ঘটনাস্থলে ১ জন টেন্ডল ও ১ জন লস্কর নিহত। অগ্নিদগ্ধ তিনজনকে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ (চমেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এদের মধ্যে ২ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

বৃহস্পতিবার (২৯ এপ্রিল) সকাল ৭টায় বন্দরের ৯ নম্বর জেটির বিপরীত পাশে ‘এমটি ইরাবতী-১’ নামের ট্যাংকারে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। এ সময় জাহাজের তিনজন শ্রমিক আবু সুফিয়ান (৪৭), সাহাবুদ্দিন (৬০) ও মনির হোসেন (৩৪) গুরুতর আহত হন।

বন্দর সূত্রে জানা গেছে, ৬০ মিটার লম্বা ও সাড়ে ৩ মিটার ড্রাফটের (জাহাজের পানির নিচের অংশ) ট্যাংকারটি ১২০০ টন পণ্য নিয়ে আশুগঞ্জ থেকে কর্ণফুলী নদীর দক্ষিণ পাড়ে সুপার পেট্রোক্যামিক্যাল জেটিতে আসে। জাহাজটির এজেন্ট ঈগল রিভার ট্রান্সপোর্ট। সকালে ট্যাংকারটির ইঞ্জিন রুমে আগুন ধরে গেলে ঘটনাস্থলে ২ জন মারা যান। তাদের মরদেহ উদ্ধার করে ফায়ার সার্ভিস।

আগুন লাগার খবর পেয়ে বন্দরের পাইলট আবুল খায়েরের নেতৃত্বে টাগবোট কাণ্ডারী ১, কাণ্ডারী ১০ পানি এবং ফোম ছিটিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। অগ্নিনির্বাপণ ও উদ্ধার কাজে যোগ দেয় ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স।

চমেক পুলিশ ফাঁড়ির এএসআই শীলব্রত বড়ুয়া জানান, আহত অবস্থায় সকাল পৌনে ৯টার দিকে তিনজনকে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদের বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ওয়ার্ডে ভর্তি করে দেন। আহত ব্যক্তিদের মধ্যে মনির হোসেনের অবস্থা আশঙ্কামুক্ত হলেও আবু সুফিয়ান এবং সাহাবুদ্দিনের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন।

BAY OF BENGAL NEWS / বে অব বেঙ্গল নিউজ