ওবায়দুল কাদেরের উপন্যাস অবলম্বনে নির্মিত গাঙচিল সিনেমার শুটিং শুরু

২১৭ দিন পর শুটিংয়ে ফিরলেন ফেরদৌস-পূর্ণিমা জুটি। বিএফডিসিতে ওবায়দুল কাদেরের উপন্যাস অবলম্বনে নির্মিত গাংচিল সিনেমার শুটিং শুরু করেছেন তারা। ঘূর্ণিঝড় জলোচ্ছ্বাস এর সাথে যুদ্ধ করে টিকে থাকা মানুষের গল্প নিয়ে নির্মিত সিনেমাটি পরিচালনা করছেন নাঈম ইমতিয়াজ নেয়ামুল।

ওবায়দুল কাদেরের উপন্যাস অবলম্বনে নির্মিত গাঙচিল সিনেমার শুটিং শুরু
প্রতীকী চিত্র।

বিএফডিসির ৯ নং ফ্লোরে শুটিং চলছে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের উপন্যাস অবলম্বনে নির্মিত হতে যাওয়া সিনেমা গাঙচিলের। করুণা মুক্ত হয়ে ১৭ অক্টোবর এ সিনেমার শুটিংয়ে অংশ নিয়ে সাতমাসের লম্বা বিরতির ইতি টানেন পূর্ণিমা। এদিকে বিউটি সার্কাসের ২১৭ দিন পর শুটিংয়ে অংশ নেন ফেরদৌস।

নোয়াখালীর গাংচিল গ্রামের মানুষের জীবনযাত্রার চিত্র নিয়ে সাজানো চলচ্চিত্রটির গল্প। যেখানে প্রথমবারের মতো সাংবাদিকের ভূমিকায় দেখা যাবে ফেরদৌসকে। এছাড়া গুরুত্বপূর্ণ একটি চরিত্রে দেখা যাবে তারিক আনাম খানকে।

এ ব্যাপারে চলচ্চিত্র অভিনেতা ফেরদৌস বলেন, ক্যারিয়ারের শুরুর দিন থেকেই অনেক সাংবাদিকের সাথে বন্ধুত্ব তাই তাদের চরিত্র কিছুটা মাথায় রেখেছি। ফেরদৌস ঋতুপর্ণা হলে এক ধরনের দর্শক আসতো আবার পূর্ণিমা হলে অন্য ধরনের দর্শক আসতো কিন্তু এখন সবাই আসবে বলে আশাবাদী তিনি

অভিনেতা তারিক আনাম খান বলেন, আমি ইনজয় করি ভিন্ন ধরনের ক্যারেক্টার করতে। ছবির গল্প যদি মানুষের বুকে ধাক্কা দেয় তাহলে আজ না হয় কাল মানুষ তা দেখবে।

দর্শক হলো আসবা না এই শঙ্কায় এবছর গাংচিল প্রেক্ষাগৃহে আসছে না বলে জানান নির্মাতা।

নির্মাতা নাঈম ইমতিয়াজ নেয়ামুল গণমাধ্যমকে বলেন, আমরা সবকিছু রেডি করে রাখবো একটা সময় পরিস্থিতি ভালো হলে আমরা তা রিলিজ দেব।

উল্লেখ্য এই সিনেমার চিত্রনাট্য লিখেছেন মারুফ রেহমান ও প্রিয় চট্টোপাধ্যায়। অতিথি চরিত্রে থাকছেন কলকাতার অভিনেত্রী ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত।

ওয়াইএইচ / বে অব বেঙ্গল নিউজ / Bay of Bengal news