স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রীকে সুজনের চিঠি

পতেঙ্গায় মাতৃসদন কাম জেনারেল হাসপাতাল চেয়ে
স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রীকে সুজনের চিঠি |

নগরের ইপিজেড-পতেঙ্গা এলাকার লাখো কর্মজীবী নারী শ্রমিক ও এলাকাবাসীর সুচিকিৎসার জন্য মাতৃসদন কাম জেনারেল হাসপাতাল চেয়ে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেককে চিঠি দিয়েছেন চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের (চসিক) প্রশাসক খোরশেদ আলম সুজন।

স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রীকে সুজনের চিঠি
ছবি:সংগৃহীত

প্রতিষ্ঠানগুলোতে প্রায় ১০ থেকে ১৫ লাখ শ্রমিক কাজ করেন, যাদের মধ্যে অধিকাংশই নারী।

নারী শ্রমিকদের মধ্যে বছরে কমপক্ষে ২ থেকে ৩ লাখ গর্ভবতী। গর্ভধারণ থেকে শুরু করে সন্তান প্রসব পর্যন্ত শ্রমজীবী নারীদের সুচিকিৎসার জন্য উক্ত এলাকায় কোনো মাতৃসদন হাসপাতাল নেই। তা ছাড়া লাখ লাখ শ্রমিকদের যেকোন সাধারণ চিকিৎসার জন্যও উক্ত এলাকায় কোনো জেনারেল হাসপাতাল নেই।

সর্বোপরি বন্দর থেকে পতেঙ্গা পর্যন্ত ও এর সন্নিহিত এলাকা ব্যস্ততম এলাকা হওয়ায় এবং চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ কর্তৃক এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে ও জলাবদ্ধতা নিরসন প্রকল্পের কাজ চলমান থাকায় প্রতিনিয়ত যানজট লেগেই থাকে।

যার ফলে গর্ভবতী নারী শ্রমিকসহ শ্রমিকদের প্রায় ১০ থেকে ১৫ কিলোমিটার দূরের চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল কিংবা জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাসেবা গ্রহণ করা অনেক সময়সাপেক্ষ এবং এতে তারা প্রতিনিয়ত ভোগান্তির শিকার হচ্ছেন।

এ প্রেক্ষিতে চট্টগ্রাম ইপিজেড ও সন্নিহিত এলাকার বিপুল সংখ্যক কর্মজীবী মানুষের সুচিকিৎসার জন্য উক্ত এলাকায় ১টি মাতৃসদন কাম জেনারেল হাসপাতাল প্রতিষ্ঠা করা অতীব প্রয়োজন।

স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রীকে সুজনের চিঠি
সুজন।ছবি:সংগৃহীত

বৃহস্পতিবার (৩ সেপ্টেম্বর) পাঠানো চিঠিতে সুজন বলেন, দেশের দ্বিতীয় বৃহত্তম শহর চট্টগ্রাম মহানগরীর বন্দর থেকে শুরু করে পতেঙ্গা ও এর সন্নিহিত এলাকায় ইপিজেড, গার্মেন্টস, অসংখ্য শিল্প-কারখানা ও বিভিন্ন ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান গড়ে উঠেছে।

চসিক প্রশাসক মাতৃসদন কাম জেনারেল হাসপাতাল প্রতিষ্ঠার ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য মন্ত্রীর ব্যক্তিগত হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *